শুক্রবার, ২৫ জুন ২০২১
logo
কর আদায়ে আক্রমণ করা হবে
প্রকাশ : ০৯ জুন, ২০১৫ ১১:৪২:২০
প্রিন্টঅ-অ+
ব্যবসা ওয়েব

ঢাকা: ২০১৫-১৬ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটে যে বড় অঙ্কের রাজস্ব সংগ্রহের লক্ষ্যমাত্রা ঠিক করা হয়েছে তা অর্জনে জরিপের মাধ্যমে খুঁজে পাওয়া নতুন করদাতাদের ওপর আক্রমণ করা হবে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।
সোমবার বিকালে এনবিআরের সম্মেলন কক্ষে ২০১৪-২০১৫ অর্থবছরের লক্ষ্যমাত্রা অর্জন এবং ২০১৫-২০১৬ অর্থবছরের বাজেট বাস্তবায়নের বিষয়ে আলোচনা অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা জানান। আলোচনা অনুষ্ঠানটির সভাপতিত্ব করেন এনবিআর চেয়ারম্যান মো. নজিবুর রহমান।
অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘রাজস্ব লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের আমাদের ভরসাটা হলো নতুন করদাতা। ঢাকা ও নিকট এলাকার মধ্যে একটা সার্ভে করেছিল জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)। তাতে দেখা গেছে- অনেক মানুষের গাড়ি, বাড়ি ও কর দেয়ার মতো বিশাল সম্পদ আছে। অথচ তারা কর দেন না। বর্তমান করদাতার সংখ্যা ১১ লাখ, আর তাদের যোগ করে এই কর দাতার সংখ্যা দ্বিগুণ হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তাই এই বিশাল লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের জন্য খুঁজে পাওয়া এইসব নতুন কর দাতাদের কাছ থেকে কর আদায়ে আমরা আক্রমণ করবো।’
করপোরেট ট্যাক্স হবে আগামীতে প্রধান খাত উল্লেখ তিনি বলেন, ‘আগামীতে রাজস্ব আদায়ে ক্ষেত্রে করপোরেট ট্যাক্সের ব্যাপক সম্ভাবনাময় ভবিষৎ আছে। আগামী অর্থ বছরগুলোতে একটা বড় পরিবর্তন হচ্ছে সেটা হলো, আয়কর থেকে করপোরেট ট্যাক্সই কর আদায়য়ের প্রধান খাত হবে। আমি যখন ১৯৮২ সালে প্রথম মন্ত্রী হই তখন এই খাত থেকে দশ শতাংশ কর আদায় হতো। এবারে ৩৮ শতাংশ আদায় হবে এই খাত থেকে। আগমী বছরগুলোতে আরো বাড়বে।’
তিনি বলেন, ‘আসলে আমাদের নির্ধারণকৃত লক্ষ্যমাত্রা আদায়যোগ্য কি না, এই লক্ষ্য মাত্রা কীভাবে আদায় করা যায়, সেটার জন্যই আজকের সভার আয়োজন করা হয়েছে। আমি বলবো এই লক্ষ্যমাত্র হলো আমাদের বাস্তব লক্ষ্যমাত্রা। কেননা আমাদের অনেক দক্ষতা বেড়েছে, আমাদের করের উৎসও অনেক ভালো। আগের চাইতে আমাদের অনেক জনবল বৃদ্ধি হয়েছে। এবারে ৬৫ হাজার ৯৩২ কোটি আয়কর থেকে নির্ধারণ করেছি। এই বছরে ৫০ হাজার কোটি টাকা আদায় হবে বলে আশা করছি।’
২০১৫-১৬ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটে অর্থমন্ত্রী মোট ব্যয় প্রস্তাব করেছেন ২ লাখ ৯৫ হাজার ১০০ কোটি টাকা। বিপুল অংকের বাজেটের খরচ মেটাতে রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা দিয়েছেন তিনি ২ লাখ ৮ হাজার ৪৪৩ কোটি টাকা; যার এক লাখ ৭৬ হাজার ৩৭০ কোটি টাকার বেশি আদায় করবে এনবিআর।
 

ব্যবসা-অর্থনীতি এর আরো খবর