শুক্রবার, ১৮ আগস্ট ২০১৭
logo
আজমলের পাশে পিসিবি ও সাবেকরা
প্রকাশ : ১০ সেপ্টেম্বর, ২০১৪ ১৫:৪২:০৬
প্রিন্টঅ-অ+
ক্রীড়া ওয়েব

চাঁদপুর: অবৈধ বোলিং অ্যাকশনের জন্য আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে নিষিদ্ধ  করা হয়েছেন পাক অফস্পিনার সঈদ আজমলকে। আইসিসির এই নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার বা আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে আজমলের ফিরে আসার বিষয়ে সবকিছুই করবে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) এমন বার্তা জানিয়েছেন খোদ পিসিবি সভাপতি। আর দুঃসময় পাড়ি দিতে আজমল নিজ দেশের ক্রিকেট বোর্ড ছাড়াও সহায়তা পাচ্ছেন সাবেক গ্রেটদের।
আইসিসির বিশেষজ্ঞ দলের পর্যবেক্ষণ ও পরীক্ষা শেষে দেখা গেছে আজমলের বোলিংয়ের সময় কনুই ৩৫ ডিগ্রি বাঁক নিচ্ছে। আর সেকারণেই মঙ্গলবার তাকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়। তবে এই নিষেদ্ধাজ্ঞার বিরুদ্ধে আপিলের জন্য ১৪ দিন সময়ও দিয়েছে আইসিসি।
পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের কর্মকর্তারা আজমলের ‘দোসরা’ বোলিং নিয়ে সমস্যা থাকতে পারে বলে ভাবছিল। তবে আইসিসির নব গঠিত কমিটির এই সিদ্ধান্তে এবং রিপোর্টে কিছুটা বিস্ময়তো ছিলই তাদের জন্য। বলা হয়েছে আজমলের প্রতিটি বলই অবৈধ। ওয়ানডের সেরা বোলোর আমলের নির্বাসন ভাবাচ্ছে পাকিস্তানের কোচ, কর্মকর্তাসহ সবা ক্রিকেটভক্তকেই। তাই বোর্ড তার জন্য সব কিছুই করতে প্রস্তুত।- ওয়েব সাইট
পিসিবির সভাপতি শাহরিয়ার খান জানালেনে আজমলের বিষয়ে পরবর্তী পদক্ষেপ নিচ্ছে বোর্ড। তিনি বলেন, ‘আমাদের হাতে ১৪ দিন সময় আছে আপিলের জন্য।’ তবে আপিল বিষয়ে এখনও সিদ্ধান্ত নেয়নি পিসিবি।
আপাতত বোলিং অ্যাকশন ত্রুটি চিহ্নিত করার জন্য পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের গঠিত কমিটির কাছে আজমলের বোলিং অ্যকশনের বিষয়টি পর্যবেক্ষণের দায়িত্ব দিচ্ছেন পিসিবি সভাপতি শাহরিয়ার খান। তিনি বলেন, ‘বোর্ড তাদের পর্যবেক্ষণ শেষে পর্যবেক্ষনের ফলাফল দেখে সিদ্ধান্ত নিবে কী করা যায়।’
তবে আইসিসির এমন সিদ্ধান্তে কিছুটা বিরক্তি নিয়েই পাকিস্তানের সবেক ফাস্ট বোলার শোয়েব আখতার বলেছেন, ‘ আমার মনে হয় আজমলের আইনি সহায়তা নেওয়া উচিৎ।’
ক্যারিয়ারে একাধিকবার চাকিংয়ের অভিযোগে অভিযুক্ত হয়েছিলেন শোয়েব। তিনি তার বিস্ময় প্রকাশ করেছেন আইসিসির সাম্প্রতিক কর্মকান্ডে, ‘আমি এটা ভেবে অবাক হয়ে যাচ্ছি যে, খুব অল্প সময়ের ব্যবধানেই একাধিক বোলারকে সন্দেহজনক বোলিং অ্যাকশনের জন্য আইসিসির শিকার হতে হচ্ছে। নতুন এই নিয়মকে চ্যালেঞ্জ জানানো উচিৎ। তবে সিদ্ধান্তটা আজমলকেই নিতে হবে।’
আজমলকে সহায়তা করতে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন সাবেক পাকিস্তানি গ্রেট স্পিনার সাকলাইন মোস্তাকসহ আরও অনেকে। উমর গুল আশা করছেন অ্যাকশন শুধরে খুব দ্রুতই ফিরবেন আজমল।
পাক ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি আরও একধাপ এগিয়ে ভাবছেন যে কোন ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করার কথাও। তিনি বলেছেন, ‘আজমলেকে খেলা থেকে দূরে রাখার কোন ধরনের ষড়যন্ত্র হলে সেটা থেকে বাঁচার উপায় বাতলে দিতে পারবে বর্তমান হেড কোচ ওয়াকার ইউনিসই।’
‘আইসিসি শুধু পাকিস্তান না বাংলাদেশ, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও শ্রীলঙ্কার অনেক বোলারকে সন্দেহের তীরে বিদ্ধ করে চলেছে। আইসিসি এখন এ ব্যাপারে খুব শক্ত ভূমিকা পালন করছে।’ কিছুটা বিরক্তি নিয়েই এমন মন্তব্য করেন পিসিবি সভাপতি শারিয়ার খান।
তবে সম্প্রতি সময়ে আইসিসির বোলিং অ্যাকশন নিয়ে নতুন নিয়ম ও অতিরিক্ত সতর্কতার বিষয়ে পিসিবির বক্তব্যে বিরক্তি ফুঁটে উঠলেও আইসিসির সিদ্ধান্তের বিপক্ষে কোন কিছু বলেননি তিনি।
 

খেলা এর আরো খবর