বৃহস্পতিবার, ০৪ জুন ২০২০
logo
টেকসই উন্নয়নে চাই দক্ষতা: প্রধানমন্ত্রী
প্রকাশ : ০৫ অক্টোবর, ২০১৬ ১৬:৫০:৪০
প্রিন্টঅ-অ+
জাতীয় ওয়েব

ঢাকা: টেকসই উন্নয়নের লক্ষ্য (এসডিজি) পূরণে দক্ষতা অর্জনের বিষয়ে গুরুত্বারোপ করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
বুধবার নিজের কার্যালয়ে জাতীয় দক্ষতা ও উন্নয়ন কাউন্সিলের সভার উদ্বোধনী বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, “এসডিজি কি করে আমরা বাস্তবায়ন করবো, অর্থাৎ যেকোনো উন্নয়নই আমরা করি না কেন, সেটা যেন টেকসই হয় সেটাই সব থেকে বেশি গুরুত্বপূর্ণ। সেক্ষেত্রে আমরা মনে করি, প্রত্যেকটা কাজেই দক্ষতা সব থেকে বেশি প্রয়োজন। কাজেই এ দক্ষতা উন্নয়নের যে লক্ষ্য, সেটাই আমাদের সুনির্দিষ্ট করতে হবে যে, আমরা কিভাবে কর্মক্ষেত্রে আরো বেশি দক্ষতা অর্জন করতে পারি।”
২০৩০ সালের মধ্যে টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে বাংলাদেশের করণীয়, কৌশল ও পরিকল্পনাগুলোও চিন্তা করায় গুরুত্ব দেন প্রধানমন্ত্রী।
দেশকে দ্রুত উন্নতির পথে নিয়ে যাওয়াই তার সরকারের লক্ষ্য মন্তব্য করে শেখ হাসিনা বলেন, এটা করতে সবসময় মানবসম্পদ উন্নয়নে গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে। এ জন্য দেশের মানুষকে সুশিক্ষিত করে এমনভাবে তৈরি করার লক্ষ্য রয়েছে, যাতে প্রত্যেকটা কাজ সুষ্ঠুভাবে করা যায়। একইসঙ্গে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে প্রতিযোগিতার মাধ্যমে চলার বিষয়টিও তুলে ধরেন তিনি।
প্রধানমন্ত্রী দক্ষ জনশক্তি রফতানিতে গুরুত্ব দিয়ে বলেন, “আগে যেমন ধরে-বেঁধে পাঠানো হত, সেটা না, আমরা দক্ষ জনশক্তি পাঠাতে চাই।”
১০০ অর্থনৈতিক অঞ্চল গড়ে তোলার কথা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী এসব স্থানে দক্ষ জনশক্তির প্রয়োজনীয়তার কথা উল্লেখ করেন।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ‘আধুনিক প্রযুক্তিসম্পন্ন’ জাতি গঠনে জাতীয় দক্ষতা ও উন্নয়ন কাউন্সিলের ‘অনেক দায়িত্ব’ রয়েছে জানিয়ে সংশ্লিষ্ট সব মন্ত্রণালয়ের কাজ সমন্বয় করতে একটা জায়গা থেকে তদারকির প্রয়োজনীয়তাও তুলে ধরেন।
২০২১ সালের মধ্যে মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত হওয়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “ইতোমধ্যে অনেক অর্জন আমরা করেছি। সারাবিশ্বে বাংলাদেশ প্রশংসিত হচ্ছে। যে ইমেজ গড়ে উঠেছে সেটা ধরে রাখতে হবে। দীর্ঘ পরিকল্পনা থাকতে হবে। দীর্ঘ পরিকল্পনা হাতে না থাকলে টেকসই উন্নয়ন আমরা করতে পারবো না। রাজনৈতিক দল হিসেবে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সে ধরনের পরিকল্পনা ও অর্থনৈতিক নীতিমালা আছে।”
অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ, প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসি, শ্রম প্রতিমন্ত্রী মুজিবুল হক চুন্নু, মন্ত্রিপরিষদ সচিব শফিউল আলম, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব আবুল কালাম আজাদ, প্রেস সচিব ইহসানুল করিমসহ সংশ্লিষ্ট সচিবরা।

জাতীয় এর আরো খবর