মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১
logo
নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু তৈরির প্রশংসা করলেন অভিজিৎ
প্রকাশ : ১৮ জুন, ২০১৬ ১৪:৩৬:৪১
প্রিন্টঅ-অ+
জাতীয় ওয়েব

জাতীয় সংসদ থেকে : বাংলাদেশের সার্বিক উন্নয়ন এবং নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু তৈরির ভূয়সী প্রশংসা করেছেন ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জীর ছেলে ও লোকসভার সদস্য অভিজিৎ মুখার্জী।
শনিবার (১৮ জুন) জাতীয় সংসদের স্পিকার ও সিপিএ নির্বাহী কমিটির চেয়ারপার্সন ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সঙ্গে তাঁর কার্যালয়ে সাক্ষাৎকালে অভিজিৎ মুখার্জী এ প্রশংসা করেন।
তিনি বলেন, ‘ভারত ও বাংলাদেশের বন্ধুত্বের সম্পর্ক ঐতিহাসিক। দু’দেশের সংসদের মধ্যে নিয়মিত প্রতিনিধি বিনিময়ের মাধ্যমে এই সম্পর্ক আরো জোরদার হচ্ছে।’
ভারতের লোকসভার সদস্য অভিজিৎ মূখার্জী বলেন, ‘বাংলাদেশ ও ভারত বিশেষ করে পশ্চিমবঙ্গের মানুষের সংস্কৃতি, ভাষা ও আচার আচরণ এক। দু’দেশের মধ্যে ব্যবসা বাণিজ্যে আরো প্রসার হলে এর মাধ্যমে দু’দেশের মানুষের সম্পর্কের উন্নয়ন ঘটবে।’
তিনি বাংলাদেশের উত্তর পশ্চিম অঞ্চলের সীমান্ত এলাকায় আরো বেশি সংখ্যক বর্ডার হাট চালু এবং একই সঙ্গে সীমান্তবর্তী এলাকার যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নের ওপর গুরুত্বারোপ করেন।
বাংলা ভাষার উন্নয়নের জন্য দু’দেশের কবি সাহিত্যিকদের সম্মিলিতভাবে বাংলা ভাষা চর্চার সুযোগ সৃষ্টি ও বাংলা ভাষার উন্নয়নে যৌথ গবেষণা কার্যক্রম বৃদ্ধির আহবান জানান তিনি।
সাক্ষাৎকালে তাঁরা দু’দেশের সংসদ,সংসদীয় কার্যক্রম, নারী নেতৃত্বের বিকাশ, ব্যবসা বাণিজ্যের প্রসার,বর্ডার হাট চালু , সীমান্ত এলাকার যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়ন, দু’দেশের কবি সাহিত্যিকদের বাংলা ভাষা চর্চার সুযোগ বৃদ্ধি ও বাংলা ভাষায় গবেষণা কার্যক্রম বৃদ্ধি ইত্যাদি বিষয়ে আলোচনা করেন।
ভারতের সাথে বাংলাদেশের দ্বি-পাক্ষিক সম্পর্ক খুবই চমৎকার উল্লেখ করে স্পীকার বলেন, ব্যবসা, বাণিজ্য, বিনিয়োগসহ উন্নয়নের সকল ক্ষেত্রে ভারত বাংলাদেশকে সহযোগিতা প্রদান করে যাচ্ছে। তিনি দু’দেশের জনগণের মধ্যে ভবিষ্যতে এসকল ক্ষেত্রে আরো সহযোগিতা বৃদ্ধির ওপর গুরুত্বারোপ করেন।
স্পিকার আরো বলেন, ‘ভারতের সংসদীয় গণতন্ত্রের ইতিহ্সা দীর্ঘদিনের এবং তা অত্যন্ত সমৃদ্ধ। বাংলাদেশও এক্ষেত্রে উন্নতি সাধন করছে। বাংলাদেশ ও ভারতের পারস্পরিক বন্ধুত্ব ও সহযোগিতার সম্পর্ক ভবিষ্যতে আরও বৃদ্ধি পাবে বলে তারা আশা করি।’
এসময় অন্যান্যের মধ্যে বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি মুহাম্মদ ফারুক খান এমপি, হুইপ ইকবালুর রহিম এমপি এবং বেগম মাহজাবিন খালেদ এমপি উপস্থিত ছিলেন।

জাতীয় এর আরো খবর