মঙ্গলবার, ০২ জুন ২০২০
logo
সন্ত্রাসী সন্দেহে ২ যুবককে পিটিয়ে হত্যা
প্রকাশ : ০৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১১:৪৬:১৭
প্রিন্টঅ-অ+
জেলা ওয়েব

বান্দরবান: সন্ত্রাসী চাঁদাবাজ সন্দেহে বান্দরবানের রোয়াংছড়িতে দুই যুবককে পিটিয়ে হত্যা করেছে গ্রামবাসীরা।
মঙ্গলবার রাত পৌনে ১১ টার দিকে উপজেলার আলিখ্যং ইউনিয়নের অঙ্গ্যা পাড়ায় এ ঘটনা ঘটেছে।
পুলিশ লাশ উদ্ধার করেছে। ঘটনার পর রোয়াংছড়ি থেকে সেনাবাহিনী সদস্য এলাকায় গিয়েছে।
বুধবার সকালে জেলা প্রশাসক দিলীপ কুমার বণিক রোয়াংছড়ি  গিয়েছেন। নিহতরা হলো উক্যহ্লা মারমা (২৮) অপ্রমং মারমা (৩০)। এদের দুজনের বাড়ি লামা উপজেলায় বলে জানা গেছে।
আলিখ্যং ইউপি চেয়ারম্যান বিশ্বনাথ তঞ্চঙ্গা জানান, রাতে দুই যুবক পাড়ার কার্বারীর ছেলে স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতা থুইছাচিং মারমাকে মারতে আসলে পাড়ার লোকজন তাদের পিটিয়ে হত্যা করে।
এর আগে মঙ্গলবার দুপুরে তারা কয়েক দফা থুইছাচিং এর উপর হামলার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়। পরে রাতে পাড়ায় পুনরায় হামলা চালাতে গেলে পাড়ার লোকজন তাদের পিটিয়ে হত্যা করে। নিহত দুজনই জনসংহতি সমিতির সদস্য বলে ইউপি চেয়ারম্যান জানিয়েছেন।
স্থানীয়রা জানান, থুইছাচিং মারমা সন্ত্রাস দমন কমিটির স্থানীয় সভাপতি। মঙ্গলবার সকালে সে সেনাবাহিনীর ক্যাম্পে যায়। সেখান থেকে ফেরার পথে নিহত দুই যুবক তার উপর হামলার চেষ্টা চালায়। সন্ত্রাসীদের সম্পর্কে সেনাবাহিনী ও পুলিশের কাছে আগে থেকেই অভিযোগ দিয়েছিল থুইছাচিং মারমা ও পাড়ার লোকজন।
রোয়াংছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওমর আলী জানান, নিহত দুজনের নাম পাওয়া গেলেও তারা কোনো দলের তা এখনো জানা যায়নি ।  কি কারণে তাদের হত্য করা হয়েছে পুলিশ তদন্ত করে দেখছে।
এদিকে এ ঘটনা পর এলাকায় জনমনে আতংক দেখা দিয়েছে। স্থানীয়রা জানিয়েছেন, এলাকায় সন্ত্রাস ও চাঁদাবাজি বন্ধে পাড়ায় পাড়ায় সম্প্রতি সন্ত্রাস দমন কমিটি গঠন করা হয়েছে।

জেলা এর আরো খবর