শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০
logo
পাকিস্তানকে সতর্ক করলেন ওয়াসিম আকরাম
প্রকাশ : ১৩ জুলাই, ২০১৬ ১০:৩০:৩৬
প্রিন্টঅ-অ+
ক্রিকেট ওয়েব

করাচি:  লর্ডস টেস্ট দিয়ে শুরু হচ্ছে পাকিস্তান-ইংল্যান্ড সিরিজ। ১৪ জুলাই বৃহস্পতিবার সিরিজের প্রথম টেস্ট শুরু হবে। টেস্ট সিরিজকে সামনে রেখে পাকিস্তানী সাবেক তারকা ওয়াসিম আকরাম পুরো দলের জন্য সতর্কবার্তা ছুঁড়ে দিয়ে বলেছেন, দুটি অনুশীলন ম্যাচকে গুরুত্বের সাথে নেয়ার কিছু নেই। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্টে পাকিস্তানকে ভিন্ন এক চ্যালেঞ্জের মুখেই পড়তে হবে এবং সেটা মাথায় রেখেই যথাযথ প্রস্তুতি গ্রহণ প্রয়োজন।
ওয়াসিম আকরাম বলেন, “দুটি অনুশীলন ম্যাচকে মাথায় রেখে পাকিস্তান যদি নিজেদের প্রস্তুত করে তোলে তবে তারা বিরাট ভুল করবে। টেস্ট সিরিজের আবহই আলাদা। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে অনুশীলন ম্যাচগুলোতে তারা বরাবরই অপেক্ষাকৃত দূর্বল প্রতিপক্ষ হিসেবে মাঠে নামে, সেখানকার পিচগুলোও সম্পূর্ণ ভিন্ন থাকে। ওয়ার্ম-আপ ম্যাচগুলোতে শুধুমাত্র ভাল একটি প্রস্তুতির সুযোগ হিসেবে বিবেচনা করতে হবে। কিন্তু দলীয় ব্যবস্থাপনার এর থেকে বেশী কিছু আশা করা ঠিক হবে না।”
ইংল্যান্ডের মাটিতে বেশ কয়েকবার পাকিস্তানকে নেতৃত্ব দিয়েছেন ওয়াসিম। এর মধ্যে ছিল ১৯৯৯ এর বিশ্বকাপ ফাইনাল। লর্ডসে ইংল্যান্ড যে কঠিন চ্যালেঞ্জ নিয়েই মাঠে নামবে তাতে কোন সন্দেহ নেই বলেই ওয়াসিম বিশ্বাস করেন। তার মতে, এজন্য তারা সিমিং ট্র্যাক প্রস্তুত করবে, তাদের মূল একাদশও একেবারেই ভিন্ন হবে।
যদিও ওয়াসিম জানিয়েছেন, পাকিস্তানের বর্তমান পেস বোলারদের পারফরম্যান্সে তিনি সন্তুষ্ট। কিন্তু এরপরেও তাদের আরো কঠোর পরিশ্রমের প্রয়োজন রয়েছে। এ সম্পর্কে তিনি বলেছেন, আসন্ন সিরিজে ব্যাটিংটাই আমাকে বেশী চিন্তিত করছে। বিশেষ করে মোহাম্মদ হাফিজ, মিসবাহ-উল-হক ইংলিশ পিচে সঠিক কৌশলে খেলছে না। ইংলিশ বোলারদের মোকাবেলা করার পন্থা এটা না। আমাদের ব্যাটসম্যানরা কঠিন পরীক্ষার মুখে পড়তে যাচ্ছে। তবে ইউনিস খান, আসাদ শফিক, আজহার আলী যদি ভাল খেলে তবে এটা একটি ভাল সিরিজ হবে। কিন্তু আমার মতে ইংল্যান্ডই ফেবারিট হিসেবে সিরিজ শুরু করবে।
হাফিজের ফর্ম নিয়ে সাবেক প্রধান কোচ ওয়াকার ইউনুসও আশঙ্কা প্রকাশ করে বলেছেন, হাফিজের ক্যারিয়ারের জন্য সিরিজটা বেশ গুরুত্বপূর্ণ। তাকে অবশ্যই বুঝতে হবে সে এখন আর তরুন নয়। সে যদি পারফর্ম করতে না পারে তবে বেশী সুযোগও পাবে না।
ওয়াসিম আরো মনে করেন, স্টেডিয়ামে উপস্থিত দর্শকদের কারনে বাঁহাতি পেসার মোহাম্মদ আমির হয়তবা নিজের স্বাভাবিক খেলা খেলতে পারবেন না। ২০১০’র স্মৃতির কারনে দর্শকদের বিরুপ আচরণের স্বীকার তিনি হতে পারেন। তবে সব কিছুকে পিছনে ফেলে সে যদি নিজের বোলিংয়ের ওপর মনোনিবেশ করে তবে একজন বিশ্বমানের পেসার হিসেবে নিজেকে প্রমান করতে সক্ষম হবে।
সূত্র: সংবাদ সংস্থা

ক্রিকেট এর আরো খবর