মঙ্গলবার, ২১ মে ২০১৯
logo
২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় নিহতদের স্মরণে জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের শোকসভা
যারা বঙ্গবন্ধুর আদর্শের রাজনীতি করেন, তারা স্বাধীনতা বিরোধীদের সাথে মিশতে পারেন না
প্রকাশ : ২২ আগস্ট, ২০১৭ ১২:৪০:৩৬
প্রিন্টঅ-অ+
ডাঃ দীপু মনি এমপি

২০০৪ সালের ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় নিহতদের স্মরণে শোকসভার আয়োজন করেছে চাঁদপুর জেলা মহিলা আওয়ামী লীগ। গতকাল সোমবার (২১ আগস্ট) বিকেলে জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এ শোক সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, চাঁদপুর-৩ আসনের সংসদ সদস্য ও সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি। তিনি তাঁর বক্তব্যে বলেন, আজ ভয়াল ২১ আগস্ট। শেখ হাসিনাসহ আওয়ামী লীগের নেতৃত্বকে ধ্বংস করার জন্যে ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট খালেদা-তারেক চক্র এ গ্রেনেড হামলা চালিয়েছিলো। সে হামলায় আইভি রহমানসহ সকল শহীদের স্মরণে চাঁদপুর জেলা মহিলা আওয়ামী লীগ যে আয়োজন করেছে, তাতে তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাই।  


তিনি বলেন, আমাদের করণীয় কী তা জানতে হবে। করণীয় হলো একটি সুন্দর বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠা করা। যে বাংলাদেশে ১৫, ১৭ ও ২১ আগস্টের মতো ন্যাক্কারজনক ঘটনার আর পুনরাবৃত্তি হবে না। তিনি বলেন, আমাদের মধ্যে নেতৃত্বের দ্বন্দ্ব থাকতে পারে। কিন্তু আদর্শের দ্বন্দ্ব নয়। দেশের ও দলের প্রয়োজনে সকল নেতা-কর্মীকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। যারা বঙ্গবন্ধুর আদর্শের রাজনীতি করেন, তারা স্বাধীনতা বিরোধী ও দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রকারীদের সাথে মিশতে পারেন না। আসুন, আমরা যারা শেখ হাসিনার কর্মী তারা সকলে একত্রিত হয়ে সকল অপশক্তিকে প্রতিহত করি।  


জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভানেত্রী অধ্যাপিকা মাসূদা নূর খানের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের জাতীয় পরিষদ সদস্য ও চাঁদপুর-৪ আসনের সংসদ সদস্য ড. মোহাম্মদ শামছুল হক ভূঁইয়া, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি পৌর মেয়র নাছির উদ্দিন আহম্মেদ ও সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল।  


বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ড. মোহাম্মদ শামছুল হক ভূঁইয়া এমপি বলেন, আগস্ট মাস শোকের মাস। পাশাপাশি আতঙ্ক ও সতর্কের মাস। ৭১-এ পাকিস্তানের কুত্তা বাহিনী ও তাদের দোসররা বাঙালি জাতির কাছে পরাজিত হয়েছিল। তারা নিজেদের স্বার্থ হাসিল করতে না পেরেই জাতির জনককে সপরিবারে হত্যা করেছিল। তারাই আবার ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা করে জাতির জনকের সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনাকেও মারতে চেয়েছিল। শেখ হাসিনার নেতৃত্বেই আমরা এ কুত্তা বাহিনীকে পরাজিত করবো।  


তিনি আরো বলেন, শেখ হাসিনার বিকল্প বাংলাদেশে নেই। তিনি আগামী দিনে প্রধানমন্ত্রী হবেন, সে লক্ষ্য ও বিশ্বাস নিয়ে সকলে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার মাধ্যমে চাঁদপুরের ৫টি আসন তাঁকে উপহার দেবো, এই হোক আজকের শোকসভায় আমাদের অঙ্গীকার।  


জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সদস্য অধ্যাপিকা আফরোজা খাতুনের পরিচালনায় আরো বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক শামছুল হক মন্টু পাটওয়ারী, পৌর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আমিনুর রহমান বাবুল, বাংলাদেশ মহিলা আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য শাহিন সুলতানা ফেন্সি, জেলা যুব মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি পৌর কাউন্সিলর ফরিদা ইলিয়াস, সাধারণ সম্পাদক ফারহানা মঈন রুমা, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগ সদস্য কাউন্সিলর আয়েশা রহমান, নূরজাহান বেগম লিপি, খাদিজা সুলতানা, রেলওয়ে শ্রমিক লীগের সভাপতি মাহবুবুর রহমান, সদর থানা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শাহিদা বেগম ও সাধারণ সম্পাদক নাহিদা সুলতানা রনি।  


আলোচনা সভা শেষে ২১ আগস্ট ও ১৫ আগস্টে নিহত সকল শহীদের স্মরণে মোনাজাত করা হয়।

চাঁদপুর : স্থানীয় সংবাদ এর আরো খবর