মঙ্গলবার, ১৪ জুলাই ২০২০
logo
চাঁদপুর জেলা উন্নয়ন ও সমন্বয় কমিটির সভায় জেলা প্রশাসক মোঃ আব্দুস সবুর মণ্ডল
ডিসেম্বরের মধ্যে মিড ডে মিল চালু করতে হবে
প্রকাশ : ২১ নভেম্বর, ২০১৬ ০৯:১৩:১০
প্রিন্টঅ-অ+
চাঁদপুর ওয়েব ডেস্ক
চাঁদপুর: চাঁদপুর জেলা মাসিক উন্নয়ন ও সমন্বয় কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল ২০ নভেম্বর রোববার সকাল ১০টায় জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে সভায় সভাপতির বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসক মোঃ আব্দুস সবুর ম-ল। তিনি তাঁর বক্তব্যে বলেন, মহিলা বিষয়ের জড়িত কোনো কর্মকর্তাদের আগামী ১ সপ্তাহের মধ্যে কোনো ছুটি নেই। ১ সপ্তাহের মধ্যে মহিলাদের ডাটাব্যাজ তৈরি করতে হবে। ১১ থেকে ১৮ বয়সের মেয়েদের এবং ১১ থেকে ২১ বছরের ছেলেরা স্কুলে অনুপস্থিত, তাদের ডাটাব্যাজ ৬ দিনের মধ্যে তৈরি করতে হবে। আর তারা কি কারণে স্কুলে যায়নি তা ক্ষতিয়ে দেখতে হবে। ডিসেম্বরের মধ্যে মিড ডে মিল চালু করতে হবে। চাঁদপুর শুধু মিড ডে মিলের ক্ষেত্রে পিছিয়ে রয়েছে। আর কোনো ক্ষেত্রে পিছিয়ে নেই। মিড ডে মিলের ক্ষেত্রে আমাদের আরো আন্তরিক হয়ে কাজ করতে হবে। কোনো শিশু শিক্ষার্থী যদি টিফিন নিয়ে স্কুলে না আসে তার মা-বাবাকে বিদ্যালয়ে ডেকে এনে কেনো টিফিন দেয়া হয়নি তা খতিয়ে দেখতে হবে। অক্ষম পরিবারের সন্তান হলে বিদ্যালয় থেকে টিফিনের ব্যবস্থা করা হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশ, কোনো জলাশয় ভরাট করা যাবে না। সকলকে ৩টি করে গাছ লাগাতে হবে।      
    শিক্ষা প্রসঙ্গে বলেন, পিএসসি পরীক্ষ শুরু হয়েছে। গত বছর পিএসসি পরীক্ষায় নকলের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এটি লজ্জাজনক। কারণ পিএসসি পরীক্ষার্থীরা হচ্ছে কোমলমতি শিশুদের। তাদেরকে নকলের মতো অবৈধ কাজে লিপ্ত করা খুবই জঘন্য কাজ। এ বছর এটা যেনো না হয়, সে বিষয়ে সকলকে সতর্ক থাকতে হবে। যদি শিক্ষকরা চায় নকল হবে না, তাহলে কারো সাধ্য নেই নকল করার। নকলের সাথে জড়িতদের এবার সরাসরি জেল দেয়া হবে। মাধ্যমিক শিক্ষা কার্যক্রমে সারাদেশের মধ্যে চাঁদপুর জেলার আবারো দ্বিতীয় স্থান অর্জন করেছে। পাশাপাশি বিভাগীয় পর্যায়ে প্রথম স্থান অর্জন করেছে। এটি আমাদের আনন্দ ও গৌরবের বিষয়। জেলার ৬শ’ ৭৯টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান তাদের নিজস্ব অর্থায়নে কম্পিউটার ক্লাসের জন্যে কম্পিউটার ক্রয় করেছে। জেলার ১ হাজার ১শ’ ৪৫টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মধ্যে ৬শ’ ৬৮টি বিদ্যালয় ইতিমধ্যে তাদের ফেসবুক আইডি খুলেছে।
    সরকার ঘোষিত ১০টাকা দরে চাল বিতরণ প্রসঙ্গে বলেন, চাঁদপুর জেলায় ৮৯টি ইউনিয়ন পরিষদ রয়েছে। ৮৮টি ইউনিয়ন সরকার ঘোষিত ১০ টাকা কেজি দরে ডিলার নিয়োগ দেয়া হয়েছে। ৩শ’ টাকায় জনপ্রতি ৩০ কেজি করে চাল দেয়া হচ্ছে। এ নিয়ে বিভিন্ন জেলায় অনিয়মের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে আমাদের সতর্ক অবস্থায় থাকতে হবে।  
    সভার শুরুতেই গত মাসের কার্যবিবরণী পাঠ ও সিদ্ধান্তসমূহের অগ্রগতি তুলে ধরেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোহাম্মদ মাসুদ হোসেন।
    সভায় আরো বক্তব্য রাখেন জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আঃ মান্নান, চাঁদপুর সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ ড. এএসএম দেলওয়ার হোসেন, চাঁদপুর সরকারি মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর এম এ মতিন মিয়া, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার এমএ ওয়াদুদ, চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডাঃ প্রদীপ কুমার দত্ত, এএসপি হেড কোয়ার্টার শাকিল আহমেদ, স্বাধীনতা পদকপ্রাপ্ত নারী মুক্তিযোদ্ধা ডাঃ সৈয়দা বদরুন নাহার চৌধুরী, এলজিইডি নির্বাহী প্রকৌশলী জিএম মুজিবুর রহমান, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা উদয়ন দেওয়ান, মতলব উত্তর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মনজুর আহমেদ মঞ্জু, শাহরস্তি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান দেলোয়ার হোসেন, ফরিদগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মাহফুজুল হক, জেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার সফিউদ্দিন, কোস্টগার্ড স্টেশন কমান্ডার এম এরায়েত উল্যাহ, জেলা মৎস্য কর্মকর্তা মোঃ সফিকুল ইসলাম, জেলা কৃষি কর্মকর্তা আলী আহম্মেদ, জেলা তথ্য অফিসার নূরুল হক, নৌ বন্দর কর্মকর্তা মোস্তাফিজুর রহমান, পরিবেশ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক আরেফিন বাদলসহ সকল দপ্তরের কর্মকর্তারা।

চাঁদপুর : স্থানীয় সংবাদ এর আরো খবর