শনিবার, ০৪ জুলাই ২০২০
logo
প্রশাসনের হস্তক্ষেপ জরুরি
চাঁদপুর শহরে অটোবাইকের বেপরোয়া চলাচল ।। একরাতে আহত ৬ জন হাসপাতালে
প্রকাশ : ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৪:২৫:১৫
প্রিন্টঅ-অ+
চাঁদপুর ওয়েব ডেস্ক

চাঁদপুর: চাঁদপুর শহর এলাকাসহ আশপাশের বিভিন্ন সড়কে অটোবাইকের বেপরোয়া চলাচল পরিলক্ষিত হচ্ছে। দ্রুতগতিতে চালাতে গিয়ে দুর্ঘটনা এখন নিত্যদিনই ঘটছে। অল্পবয়সী চালকের খামখেয়ালিপূর্ণ চালনায় অনেক যাত্রীকে পঙ্গুত্ব বরণ করতে হয়েছে।
শনিবার রাতে পৃথক দুটি দুর্ঘটনায় ৬ জন আহত হয়ে ২৫০ শয্যার চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। আহত ৬ জনের মধ্যে দু জনের অবস্থা খুবই আশঙ্কাজনক। তাদের পা ভেঙ্গে গেছে। প্রত্যক্ষদর্শী ও হাসপাতাল থেকে জানা যায়, শনিবার দিবাগত রাত সোয়া ১২টায় মুন্সীরহাটে যাত্রী নামিয়ে দিয়ে বড় স্টেশন এলাকার একটি অটোবাইক বেপরোয়া গতিতে চাঁদপুর আসার পথে বাবুরহাট লালদিয়া ছৈয়ালের দোকানের সামনে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশে পড়ে যায়। এতে ইউসুফ (১৯), সুমন (২০) ও সাগর (১৮) রাস্তায় ছিটকে পড়ে। তাদের 'বাঁচাও বাঁচাও' চিৎকার শুনে অন্য গাড়ির সহায়তায় স্থানীয় লোকজন তাদের উদ্ধার করে চাঁদপুর জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসে। আহত তিনজনের বাড়ি চাঁদপুর শহরের রেলওয়ে ক্লাব রোড এলাকায়।
অপর দুর্ঘটনাটি ঘটে রাত আড়াইটায় শহরের বকুলতলার সম্মুখে। দ্রুত গতির দুটি অটোর মধ্যে সংঘর্ষে একটি অটো উল্টো যায়। এ ঘটনায় নাছির উদ্দিন (৩৫), মোঃ লিখন (৩৫) ও সাইফুল (২০) আহত হন। ঈদের ছুটি শেষে দুটি পরিবার কালাইয়া থেকে কর্মস্থলে যাবার সময় দুর্ঘটনার শিকার হয়। আহতরা চট্টগ্রাম পোর্টে কাস্টমসে চাকুরি করেন। তাদের একজনের বাম পা ভেঙ্গে গেছে। বড় স্টেশন, লঞ্চঘাট সড়কে অটোবাইক ও সিএনজি স্কুটারগুলো দ্রুত গতিতে চলছে বলে অভিযোগ প্রত্যক্ষদর্শী অনেকের। চালকদের অনেকে নেশাগ্রস্ত থাকে এবং যাত্রী বহনের জন্যে লঞ্চঘাটে সারারাত জাগ্রত থাকে। চালানোর সময় চালকরা সাবধানে গাড়ি চালাচ্ছে না। তাদের দরুণ বহু যাত্রী দুর্ঘটনার শিকার হয়ে অকালে পঙ্গু হচ্ছে।
এ ব্যাপারে চাঁদপুরের প্রশাসনের হস্তক্ষেপ জরুরি বলে সচেতন শহরবাসী মনে করেন।

চাঁদপুর : স্থানীয় সংবাদ এর আরো খবর