বৃহস্পতিবার, ০৪ মার্চ ২০২১
logo
১৪ জন শিক্ষানবিশ গবেষককে সনদপত্র ও ১৭ জন গুণী শিক্ষককে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রফেসর ড. এএসএম দেলওয়ার হোসেন
শিক্ষকদের সম্মাননা দিয়ে ক্রাউন সিমেন্ট দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে
প্রকাশ : ২৩ আগস্ট, ২০১৬ ১১:৪২:২৮
প্রিন্টঅ-অ+
চাঁদপুর ওয়েব ডেস্ক

চাঁদপুর: ব্যবসার পাশাপাশি সামাজিক দায়বদ্ধতা কার্যক্রমের আওতায় ক্রাউন সিমেন্টের ব্যতিক্রমী অনুষ্ঠান গতকাল সোমবার সকালে অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ অনুষ্ঠানে ১৪ জন শিক্ষানবিশ গবেষককে সনদপত্র এবং শিক্ষাক্ষেত্রে অবদানের জন্যে চাঁদপুরের ১৭ জন গুণী শিক্ষককে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়।
চাঁদপুর জেলা শিল্পকলা একাডেমী মিলনায়তনে আয়োজিত এ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চাঁদপুর সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. এএসএম দেলওয়ার হোসেন। তিনি তাঁর বক্তব্যে বলেন, মুনাফা অর্জনের পাশাপাশি সামাজিক কার্যক্রমেও ক্রাউন সিমেন্ট এগিয়ে আসছে_এটা খুব ভালো দিক। আমরা তাদের উদ্যোগকে স্বাগত জানাই। ক্রাউন সিমেন্ট শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন করছে। এবার চাঁদপুর সরকারি কলেজের যে ১৪ জন শিক্ষানবিশ গবেষক সনদপত্র পেলো আশা করি তারা তাদের কর্ম জীবনে ভালো করতে পারবে। এ অনুষ্ঠানের মাধ্যমে শিক্ষকদের সম্মাননা দিয়ে ক্রাউন সিমেন্ট দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে।
তিনি বলেন, বর্তমান সরকার দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছে। সেই অগ্রযাত্রায় ক্রাউন সিমেন্টও অংশীদার হয়েছে। দেশের অর্থনীতির অগ্রগতিতে এ প্রতিষ্ঠানটি ভূমিকা রাখছে। ভবিষ্যতে যদি ক্রাউন সিমেন্ট এমন জনহিতৈষী কোনো উদ্যোগ নেয়, তবে সেই উদ্যোগের সাথে চাঁদপুর সরকারি কলেজ থাকবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।
ক্রাউন সিমেন্টের ইঞ্জিঃ মোঃ সাইফুল আলমের সভাপ্রধানে এবং রিসার্চ, প্লানিং ও বিজনেস ডেভলপমেন্টের কর্মকর্তা রুম্মান চৌধুরীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন চাঁদপুর সরকারি কলেজের উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মোহাম্মদ শাহ আলম। অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি বিএম হান্নান, দৈনিক চাঁদপুর কণ্ঠের প্রধান সম্পাদক কাজী শাহাদাত ও চাঁদপুর সরকারি কলেজ শিক্ষক পরিষদ সম্পাদক মোহাম্মদ আলমগীর হোসেন বাহার। অন্যান্যের মাঝে বক্তব্য রাখেন ক্রাউন সিমেন্টের চাঁদপুর জেলার এঙ্ক্লুসিভ ডিলার হাজী মোঃ মোশাররফ হোসাইন, এসআর ম্যানেজার মোঃ মনিরুজ্জামান মুরাদ, শিক্ষার্থী এমরান খান, মোতালেব হোসেন খান প্রমুখ। অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন ক্রাউন সিমেন্টের প্রধান অর্থ কর্মকর্তা শাহরিয়ার ইশতিয়াক হালিম, প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক সোহেল রুশদী, প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি শহীদ পাটোয়ারী, সাধারণ সম্পাদক রহিম বাদশা, দৈনিক মেঘনা বার্তার সম্পাদক ও প্রকাশক গিয়াসউদ্দিন মিলন, চাঁদপুর সরকারি কলেজের ব্যবস্থাপনা বিভাগের বিভাগীয় প্রধান চিত্তরঞ্জন দেবনাথ, রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অসিত বরণ দাশ, হিসাববিজ্ঞান বিভাগের বিভাগীয় প্রধান মোহাম্মদ বেলাল হোসাইন, মাতৃপীঠ সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক উত্তম কুমার সাহা সহ শহরের বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি, বিভিন্ন স্কুল-কলেজের শিক্ষক, প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ী ও ক্রাউন সিমেন্টের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
অনুষ্ঠানে যে ১৭ জন গুণী শিক্ষক ক্রাউন সিমেন্টের সংবর্ধনা পেয়েছেন তাঁরা হচ্ছেন : চাঁদপুর সরকারি কলেজের অবসরপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ প্রফেসর মিহির লাল সাহা ও প্রফেসর মোঃ ইকবাল হোসেন, বর্তমান অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. এএসএম দেলওয়ার হোসেন, চাঁদপুর সরকারি মহিলা কলেজের অবসরপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ প্রফেসর মনোহর আলী ও প্রফেসর মোঃ আবদুর রহিম, বর্তমান অধ্যক্ষ প্রফেসর এম.এ. মতিন মিয়া, চাঁদপুর সরকারি কলেজের বাংলা বিভাগের অবসরপ্রাপ্ত বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর মিহির কান্তি রায়, রাজনীতি বিজ্ঞান বিভাগের অবসরপ্রাপ্ত বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর মোহাম্মদ হোসেন খান ও প্রফেসর মোহাম্মদ রুহুল আমিন, অবসরপ্রাপ্ত উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মোহাম্মদ সৈয়দ আহমদ খান, ভূগোল ও পরিবেশ বিভাগের অবসরপ্রাপ্ত বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর মোঃ আইউব আলী প্রধান, হাজীগঞ্জ মডেল কলেজের অধ্যক্ষ ড. মোঃ আলমগীর কবির পাটোয়ারী, ফরিদগঞ্জ মজিদিয়া কামিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ ড. একেএম মাহবুবুর রহমান, মাতৃপীঠ সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের অবসরপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক নূর খান, চাঁদপুর গণি মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ আব্বাস উদ্দিন, হাসান আলী মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের অবসরপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক হাফেজ আহমদ ও মতলব মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক নূরুন নাহার আক্তার (বকুল)। অতিথিবৃন্দ ও ক্রাউন সিমেন্টের নেতৃবৃন্দ সম্মাননাপ্রাপ্ত শিক্ষকদের হাতে উত্তরীয়, সম্মাননা ক্রেস্ট ও উপহার তুলে দেন। পরে সম্মাননাপ্রাপ্ত শিক্ষকরা সংক্ষিপ্ত অনুভূতি ব্যক্ত করেন। এর আগে ১৪ জন শিক্ষানবিশ গবেষককে ক্রাউন সিমেন্টের পক্ষ থেকে সনদপত্র প্রদান করে অতিথিবৃন্দ। শিক্ষানবিশ গবেষকরা হলেন সুজয় সাহা, মোতালেব হোসেন খান, গোবিন্দ মজুমদার, বিপ্লব চন্দ্র দেবনাথ, হাম্মেদ মিজি, আবদুস সালাম খান, এমরান খান, সুশান্ত কু-ু, মোশারফ হোসেন, মামুন খান, বাসুদেব কু-ু, তৌসিফ হোসেন, মানিক চন্দ্র সরকার ও ফকরুল ইসলাম।
উল্লেখ্য, চাঁদপুরের স্বনামধন্য সর্বোচ্চ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান চাঁদপুর সরকারি কলেজের প্রায় ৬০ জন শিক্ষার্থী ক্রাউন সিমেন্টের দেশব্যাপী পরিচালিত 'বিজনেস রিসার্চ অন ব্র্যান্ড ইকুইটি' শীর্ষক গবেষণা কার্যক্রমে অংশ নিতে ২০১৫ সালের ডিসেম্বর মাসের শুরুতে ৩ দিনব্যাপী প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন এবং তারপর ২০১৬ সালের জানুয়ারি মাসের শেষ পর্যন্ত মাঠ পর্যায়ে কাজ করেন। এদের মধ্যে ১৪ জন শিক্ষার্থী 'শিক্ষানবিশ' গবেষক হিসেবে সফলতার সাথে তাদের গবেষণা কার্যক্রম সমাপ্ত করতে সক্ষম হন। মূলত তাদের এই সাফল্যের স্বীকৃতিস্বরূপ তাদেরকে সনদপত্র প্রদান উপলক্ষে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। বাংলাদেশের ৬৪ জেলায় পর্যায়ক্রমে ক্রাউন সিমেন্টের এমন ব্যতিক্রমধর্মী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে। ইতোমধ্যে বগুড়া ও টাঙ্গাইলে হয়েছে এই অনুষ্ঠান। সে হিসেবে চাঁদপুরের গতকালকের অনুষ্ঠানটি ছিলো তৃতীয়। চতুর্থ অনুষ্ঠানটি শীঘ্রই অনুষ্ঠিত হবে রাজশাহী সরকারি কলেজে।

চাঁদপুর : স্থানীয় সংবাদ এর আরো খবর