বৃহস্পতিবার, ০২ জুলাই ২০২০
logo
চাঁদপুর সরকারি কলেজে শিক্ষট সঙ্কট প্রকট
প্রকাশ : ১৭ আগস্ট, ২০১৬ ১৫:৪৫:৫৪
প্রিন্টঅ-অ+
শরীফ চৌধুরী

চাঁদপুর: চাঁদপুর সরকারি কলেজে শিক্ষক সঙ্কট প্রকট আকার ধারন করেছে। এ কারনে ১৭টি অনার্স, ২০টি মাস্টার্স, ডিগ্রী (পাস), উচ্চ মাধ্যমিক কোর্স এ শিক্ষা কার্যক্রম ব্যহত হচ্ছে। এছাড়া এ কলেজে উচ্চ মাধ্যমিক স্তরে কোন একাডেমীক ভবন নেই। কলেজ মসজিদটিও অর্থাভাবে নির্মাণ করা সম্ভব হচ্ছে না। এসব দাবী ইতিমধ্যে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে চাহিদা চেয়ে প্রেরণ করা হয়েছে। চাঁদপুর সরকারি কলেজ অফিস সূত্র জানান, কলেজের ১৭টি বিষয়ে অনার্স কোর্সে ১শ’ ৩টি শিক্ষকের সৃষ্ট পদ শূণ্য রয়েছে। এর মধ্যে বাংলা বিভাগে ৫জন, ইংরেজী বিভাগে ৭জন, ইতিহাস বিভাগে ৮জন, ইস.ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগে ৩জন, ইসলাম শিক্ষা বিভাগে ৪জন, দর্শণ বিভাগে ৩জন, রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগে ৫জন, সমাজকর্ম বিভাগে ৮জন, অর্থনীতি বিভাগে ৫জন, হিসাব বিজ্ঞান বিভাগে ৫জন, ব্যবস্থাপনা বিভাগে ৭জন, পদার্থ বিদ্যা বিভাগে ৩জন, রসায়ন বিদ্যা বিভাগে ৮জন, উদ্ভিদ বিদ্যা বিভাগে ৮জন, প্রাণি বিদ্যা বিভাগে ৮জন, গনিত বিভাগে ৮জন ও ভূগোল বিভাগে ৮জন শিক্ষকের সৃষ্ট পদ শূণ্য রয়েছে। এদিকে এ কলেজের চাহিদা অনুযায়ী ফিন্যান্স ও মার্কেটিং বিষয়ে অনার্স কোর্স চালুর দাবী করেছে শিক্ষার্থীরা।
      চাঁদপুর সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. এ এসএম দেলোয়ার হোসেন জানান, বর্তমানে এ কলেজের প্রধান সমস্যা হচ্ছে শিক্ষক সঙ্কট। কলেজে ১৭টি বিষয়ে অনার্স, ১৩টি বিষয়ে মাস্টার্স শেষ পর্ব, ৭টি বিষয়ে মাস্টার্স প্রথম পর্ব, ডিগ্রী (পাস) ও উচ্চ মাধ্যমিক কোর্স্ট চালু রয়েছে। কলেজে বর্তমানে ছাত্র-ছাত্রীর সংখ্যা প্রায় ১৩ হাজার। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে স্টাফ প্যার্টান অনুযায়ী প্রতিটি বিষয়ে ১২জন করে শিক্ষক থাকা আবশ্যক। কিন্তু সে অনুযায়ী কলেজে ১শ’ ৩টি নতুন পদ সৃষ্টি জরুরী হয়ে পড়েছে। ১শ’ ৩টি শিক্ষক পদ শূণ্য থাকায় পাঠদান কার্যক্রমে গতিশীলতা সৃষ্টি ও গুণগত শিক্ষায় ভিত তেমন সুদৃঢ় হচ্ছে না। এছাড়া এ কলেজে একই ক্যাম্পার্সে বর্তমানে উচ্চ মাধ্যমিক, ডিগ্রী (পাস), স্নাতক (সম্মান) ও স্নাতকোত্তর শ্রেণির ছাত্র-ছাত্রীদের  পাঠদান করা হয়। অথচ দেশের অনেকগুলো ঐতিহ্যবাহী কলেজে উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের জন্য পৃথক ক্যাম্পাস রয়েছে। এ কলেজে উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য পৃথক কোন একাডেমীর ভবন নেই। যার জন্য অনার্স ও মাস্টার্স শ্রেণির ছাত্র-ছাত্রীদের পাঠদান কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করা সম্ভব হচ্ছে না। তিনি কলেজের শেরে-বাংলা ছাত্রাবাসের পার্শ্বে খালি পড়ে থাকায় ১২বিঘা জায়গায় উচ্চ মাধ্যমিক শ্রেণির ছাত্র-ছাত্রীদের বহুতল একাডেমীক ভবন নির্মাণের দাবীও জানান। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, নাজিরপাড়াস্থ কলেজ মসজিদটি নির্মাণে একটি প্রকল্প সংশি¬ষ্ট মন্ত্রণালয়ে প্রেরণ করা হয়েছে। সহসাই তার অনুমোদন আসবে।
 

চাঁদপুর : স্থানীয় সংবাদ এর আরো খবর