শুক্রবার, ১০ এপ্রিল ২০২০
logo
হাজীগঞ্জে ইসলামিক ফাউন্ডেশনের ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানে জেলা প্রশাসক মোঃ আব্দুস সবুর মন্ডল
বাংলাদেশের মুসলমানগণ অনেক বেশি ধর্মপরায়ণ ও নবী প্রেমিক
প্রকাশ : ১২ জুলাই, ২০১৬ ১৩:৩৯:২৪
প্রিন্টঅ-অ+
ইসলাম শান্তির ধর্ম, মানুষ হত্যা করে ইসলাম প্রচার হতে পারে নাঃ পুলিশ সুপার শামসুন্নাহার

চাঁদপুর: জঙ্গিবাদের নামে যারা দেশের উন্নয়নকে বাধাগ্রস্থ করছে তারা কখনো সফল হতে পারবে না। বাংলাদেশের মতো একটি সক্ষম দেশে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ সফল হতে পারবে না। অতীতে এই জাতির উপর খড়গ চালিয়ে কেউ সফলকাম হতে পারেনি। বর্তমানে বাংলাদেশে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদের মাধ্যমে সেই অপচেষ্টা চলছে। কিন্তু এবারও তারা সফল হতে পারবেনা। গতকাল ১১ জুলাই সোমবার হাজীগঞ্জ উপজেলা ইসলামিক ফাউন্ডেশন কর্তৃক আয়োজিত ঈদ পুনর্মিলনী-২০১৬ উপলক্ষে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ বিষয়ক র‌্যালি পরবর্তী আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক মোঃ আব্দুস সবুর মন্ডল এ কথা বলেন। তিনি আরো বলেন, অন্যান্য মুসলিম দেশের তুলনায় বাংলাদেশের মুসলমানগণ অনেক বেশি আল্লাহভিরু, ধর্মপরায়ণ ও নবী প্রেমিক। সুতরাং ইসলামের অপব্যাখ্যা ও অপব্যবহার করে এদেশের মানুষকে ভুল পথে নেয়ার অপচেষ্টা সফলকাম হবে না। বাংলাদেশ একটি ডিজিটাল দেশ, এদেশের সকল মানুষ ট্র্যাকিং-এর আওতায় আসবে। অতএব ডিজিটাল পদ্ধতিকে মাধ্যম হিসেবে ব্যবহার করার সুযোগ কেউ আর পাবেনা।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ মুর্শিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন পুলিশ সুপার শামসুন্নাহার। তিনি বলেন, ইসলাম শান্তির ধর্ম। সেই শান্তিকে অশান্তি করে এবং মানুষ হত্যা করে ইসলাম প্রচার হতে পারেনা। ইসলামী দাওয়াত যদি এমনটাই হতো তাহলে রাসুল (সাঃ) সেটিই করতেন, কিন্তু তিনি করেননি। আমাদের মাঝে স্পষ্ট হয়ে উঠেছে যারা সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদের মাধ্যমে ইসলাম প্রচার করতে চায় আসলে তারা ইসলামের কেউ নয়। তারা সন্ত্রাসী ও ইসলামের অপব্যবহারকারী। সন্ত্রাসীদের কোন ধর্ম নেই। সুতরাং ধর্মকে অপব্যবহার করে কোন সন্ত্রাসী কার্যক্রম করতে দেয়া হবে না।
তিনি আরো বলেন, আমরা আমাদের ছেলে, মেয়ে, ভাই-বোনদের খোঁজ খবর রাখবো। তারা কার সাথে চলাফেরা করছে, কোথায় যাচ্ছে, কি করছে। এছাড়াও এলাকায় নতুন কেউ আসলে তার খোঁজ-খবর  নেবো। সন্দেহ সৃষ্টি হলে প্রশাসনকে জরুরি ভিক্তিতে অবহিত করবো। আমাদের পারিবারিক ও সামাজিক ভাবে সচেতন হতে হবে। তাহলে আমরা সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদমুক্ত একটি সুন্দর দেশ গড়তে পারবো।
উক্ত আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে আরো বক্তব্য রাখেন, হাজীগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ¦ অধ্যাপক আবদুর রশিদ মজুমদার, পৌর মেয়র আসম মাহবুব উল আলম লিপন, পিটিআই সুপারিনটেনডেন্ট জয়নাল আবেদিন, শহর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আহমদ খসরু, প্রেসক্লাবের সভাপতি মুন্সী মোহাম্মদ মনির, চাঁদপুর জেলা ইসলামিক ফাউন্ডেশনের ফ্লিড সুপারভাইজার মোঃ আলী আজগর, কাকৈরতলা সিনিয়র মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মফিজুল ইসলাম, পিটিআই প্রশিক্ষনার্থী মোঃ রফিকুল ইসলাম ও নুরজাহান বেগম।
অনুষ্ঠানে কোরআন তেওয়াত করেন, হাফেজ মাওলানা নজরুল ইসলাম, গীতা পাঠ করেন পরিমল চন্দ্র রায়। এ সময় চাঁদপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১ এর জিএম মোঃ ইউছুফ, সহকারি কমিশনার (ভূমি) মোঃ ওলিজ্জামানসহ আগত অতিথি, স্থানীয় রাজনীতিবিদ, সাংবাদিক, বিভিন্ন মাদ্রাসা, মসজিদ ও মক্তবের আলেম, শিক্ষক স্থানীয় জনসাধারন ও পিটিআই-এর অন্যান্য প্রশিক্ষনার্থীগণ উপস্থিত ছিলেন।

চাঁদপুর : স্থানীয় সংবাদ এর আরো খবর