সোমবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯
logo
ইউএস-বাংলার বিমান বহরে নতুন বোয়িং
প্রকাশ : ১৩ অক্টোবর, ২০১৬ ০৭:৫১:৪১
প্রিন্টঅ-অ+
ব্যবসা ওয়েব

ঢাকা: বেসরকারি বিমান সংস্থা ইউএস বাংলার বিমান বহরে যুক্ত হলো বোয়িং ৭৩৭-৮০০ এয়ারক্রাফট।
মঙ্গলবার দুপুরে হযরত শাহ্জালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে অবতরণের মধ্য দিয়ে এটি ইউএস বাংলার বিমান বহরে আনুষ্ঠানিকভাবে যুক্ত হয়।
ইউ-বাংলার মহাব্যবস্থাপক মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মামুন বলেন, ১৫৮ আসন বিশিষ্ট এই বোয়িং বিমান বহরে যুক্ত হওয়ায় অধিক আন্তর্জাতিক গন্তব্যে ফ্লাইট চালানোর পরিকল্পনা দ্রুততম সময়ে বাস্তবায়ন করা সহজ হবে।
অভ্যন্তরীণ এয়ারলাইনসগুলোর মধ্যে অদূর ভবিষ্যতে ইউএস-বাংলা এশিয়ার শ্রেষ্ট এয়ারলাইনসের স্বীকৃতি অর্জনের লক্ষ্য নিয়ে কাজ করছে জানিয়ে তিনি বলেন, এ ধরনের স্বীকৃতি অর্জিত হলে যা বাংলাদেশের এভিয়েশন শিল্পের সুনাম অর্জনেও তা ভূমিকা রাখবে।
বিমান সংস্থাটির এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, নতুন যুক্ত হওয়া বোয়িং ৭৩৭-৮০০ সহ বর্তমানে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনসের বিমান বহরে চারটি এয়ারক্রাফট রয়েছে। নতুন যুক্ত হওয়া বোয়িং এ ৮টি বিজনেস ক্লাস, প্রিমিয়াম ইকোনমি ও ইকোনমি ক্লাসসহ মোট ১৫৮টি আসন ব্যবস্থা রয়েছে। বর্তমানে ৭৬ আসনবিশিষ্ট তিনটি ড্যাশ৮-কিউ৪০০ এয়ারক্রাফট রয়েছে।
‘ফ্লাই ফাস্ট-ফ্লাই সেফ’ স্লোগান নিয়ে যাত্রা শুরু করা ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনস আন্তর্জাতিক রুট বাড়ানোর জন্য এ মাসের শেষ সপ্তাহে এবং চলতি বছরের ডিসেম্বরে মধ্যে আরো দুইটি নতুন বোয়িং ৭৩৭-৮০০ এয়ারক্রাফট বিমান বহরে যুক্ত করার পরিকল্পনা নিয়েছে।
নতুন এয়ারক্রাফটগুলোর প্রতিটিতে যাত্রীদের সুবিধার্থে চারটি করে ল্যাভাটরি রয়েছে বলে বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়।
ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী বোয়িং ৭৩৭-৮০০ এয়ারক্রাফটগুলি দিয়ে কলকাতা, কুয়ালা লামপুর, ব্যাংকক, সিঙ্গাপুর, মাস্কাট, দোহা, গুয়াংজুসহ বিভিন্ন রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করা হবে। এছাড়া শিগগিরই ঢাকা-পারো-ঢাকা রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করতে যাচ্ছে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স।
ইউএস-বাংলা’র যাত্রা শুরুর দুই বছরের মধ্যে ঢাকা-কাঠমান্ডু রুটে ফ্লাইট পরিচালনার মধ্য দিয়ে আন্তর্জাতিক রুটে অভিষেক ঘটে।
ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনস বাংলাদেশের অন্যতম বেসরকারি বিমান সংস্থা। ২০১৪ সালের ১৭ জুলাই দ্রুতগতি সম্পন্ন দুটি ড্যাশ ৮-কিউ৪০০ এয়ারক্রাফট দিয়ে ঢাকা থেকে যশোরে উদ্বোধনী ফ্লাইট পরিচালনার মাধ্যমে যাত্রা শুরু করে তারা।
গত দুই বছরের বেশি সময়ে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনস আঞ্চলিক রুট ঢাকা-কাঠমান্ডু-ঢাকা সহ অভ্যন্তরীণ বিভিন্ন গন্তব্যে প্রায় ১৬ হাজারের অধিক ফ্লাইট অত্যন্ত সফলভাবে পরিচালনা করেছে বলেও বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।
 

ব্যবসা-অর্থনীতি এর আরো খবর